চীনের সঙ্গে টক্করে নতুন প্ল্যাটফর্ম, ইন্দো-প্যাসিফিক ইকোনমিক ফ্রেমওয়ার্কে ভারত

  চীনের সঙ্গে টক্করে নতুন প্ল্যাটফর্ম, ইন্দো-প্যাসিফিক ইকোনমিক ফ্রেমওয়ার্কে ভারত

আরোহী নিউজ ডেস্ক : চীনের সঙ্গে টক্কর দিতে নয়া পরিকল্পনা ভারতের। ইন্দো-প্যাসিফিক ইকোনমিক ফ্রেমওয়ার্কে যোগ দিল নয়াদিল্লি। গত ২৩ মে এই ফোরামে ভারত যোগ দেয় বলে খবর। 

সীমান্ত নিয়ে গত কয়েক বছর ধরে চীনের সঙ্গে ভারতের শীতল সম্পর্ক চলছেই। প্যাংগংয়ে লেকের দুই ধারে ব্রিজ তৈরি করা থেকে শুরু করে অরুণাচলে অনুপ্রবেশের অর্থ হল নয়াদিল্লির উপর চাপ তৈরির কৌশল। আর এর বিরুদ্ধে লড়াইয়ের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে পড়ে দেশের অর্থনীতির ভিত কতটা মজবুত তার উপর। আর সেই উদ্দেশ্যে জো বাইডেনের নেতৃত্বে গঠিত ইন্দো-প্যাসিফিক ফ্রেমওয়ার্কে যোগ দিল ভারত। গত ২৩ মে এই ফোরামে ভারত যোগ দিয়েছে বলে খবর। মঙ্গলবার কোয়াডের উদ্বোধনের আগে জাপানের টোকিওতে ট্রেড পার্টনারশিপের সূচনা অনুষ্ঠানে যোগ দেন। সেখানে ইন্দো-প্যাসিফিক ইকোনমিক অনুষ্ঠানে যোগাদান করেন। এটি প্রথম টোকিওতে চালু করেছিলেন আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। প্রাথমিক অংশীদার ছিল ১২টি দেশ। সেই তালিকায় এবার যুক্ত হল ভারতও। ইন্দো প্যাসিফিক অঞ্চলে চীনের অর্থনৈতিক আধিপত্যকে খর্ব করাই দেশগুলির একজোট হওয়ার প্রধান কারণ। কোয়েডের উদ্বোধনী ভাষণেও নরেন্দ্র মোদী নাম না করে বেজিংকে একহাত নেন। সেই সঙ্গে ইন্দো-প্যাসিফিক অঞ্চলে শান্তি স্থাপনের পক্ষে সওয়াল করেছেন।