ফের বঙ্গ বিজেপিতে ধাক্কা , হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছাড়লেন শান্তনু ঠাকুর

ফের বঙ্গ বিজেপিতে ধাক্কা , হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছাড়লেন শান্তনু ঠাকুর

আরোহী নিউজ ডেস্ক : ফের বঙ্গ বিজেপির অন্তর্দ্বন্দ্ব প্রকাশ্যে। এবার গেরুয়া শিবিরের সমস্ত হোয়াটস অ্যাপ গ্রুপ ছাড়লেন কেন্দ্রীয় জাহাজ দপ্তরের প্রতিমন্ত্রী তথা মতুয়া সাংসদ শান্তনু ঠাকুর। কিন্তু কেন এমন সিদ্ধান্ত? জবাবে মতুয়া সম্প্রদায়ের প্রতিনিধি শান্তনু জানান, "বিজেপির হোয়াটস অ্যাপ গ্রুপ গুলি থেকে আমি বেরিয়ে গিয়েছি। আমাদের আর প্রয়োজন নেই বর্তমান বিজেপি নেতৃত্বের। মন্ত্রিত্ব ছাড়ব কিনা পরে জানাব।" তবে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর এহেন পদক্ষেপ নিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছে বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্ব।

বিজেপি সূত্রের খবর, শান্তনু দলের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের সঙ্গে দেখা করে নির্দিষ্ট সময়সীমার মধ্যে রাজ্য পদাধিকারীমণ্ডলীতে মতুয়া প্রতিনিধি আনার দাবি জানান। সেই সময়সীমা পেরোনোর পরেও তাঁর দাবি মানা হয়নি। তাই এ দিন দলের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপগুলি ছেড়েছেন তিনি। শান্তনুর কথায়, 'বঙ্গ বিজেপির বর্তমান নেতৃত্বের শান্তনু ঠাকুর বা মতুয়া সমাজের ভোট নিষ্প্রয়োজন। তাই আমারও ওই সব গ্রুপে থাকা নিষ্প্রয়োজন। সময়মতো সব জবাব দেব।'

মতুয়া সম্প্রদায়ের ৫ বিজেপি বিধায়ক বিজেপির হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছাড়ার পর এবার বিজেপির সমস্ত অফিশিয়াল গ্রুপ ছাড়লেন বাঁকুড়ার বিজেপি সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী শান্তনু ঠাকুর। এই ঘটনায় মতুয়া অধ্যুষিত এলাকায় বিজেপি নেতৃত্ব চিন্তা বাড়াতে বাধ্য হল। এই বিষয়ে একপ্রকার মুখে কুলুপ এঁটেছেন বিজেপি নেতৃত্ব। বিজেপিতে বেশ কয়েক দিন ধরেই হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছাড়ার হিড়িক পড়েছে। মাঝে কয়দিন বন্ধ থাকলেও আবারও বড়সড় ধাক্কা খেল বিজেপি। দিন কয়েক আগেই ঘোষিত হয়েছে বিজেপির নয়া রাজ্য কমিটি । তার পর থেকেই হিড়িক পড়েছে বিজেপি নেতা-বিধায়কদের দলের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছাড়ার । বাঁকুড়ার 4 বিধায়কও দলীয় গ্রুপ ছেড়েছেন সম্প্রতি ।