আজ বাঙালি কোয়েল এর জন্যই কঙ্গনা এতো বড়ো অভিনেত্রী হতে পেরেছেন!

আজ বাঙালি কোয়েল এর জন্যই কঙ্গনা এতো বড়ো অভিনেত্রী হতে পেরেছেন!

‘তনু ওয়েডস মনু’ থেকে শুরু করে ‘মণিকর্ণিকা: সমস্ত সিনেমাতেই তার অভিনয় উচ্চ প্রশংসিত হয়েছে। কিন্তু এ কথা খুব কম সংখ্যক মানুষই জানেন যে কঙ্গনার বলিউড ক্যারিয়ার অনেকটাই নির্ভর করেছিল টলিউড অভিনেত্রী কোয়েল মল্লিকের একটা সিদ্ধান্তের উপর।

কঙ্গনার বলিউড যাত্রা শুরু হয়েছিল পরিচালক অনুরাগ বসুর পরিচালনায় অভিনেতা ইমরান হাসমির সঙ্গে ‘গ্যাংস্টার’ সিনেমা অভিনয়ের মাধ্যমে।পাশাপাশি এই সিনেমায় অসাধারণ অভিনয়ের জন্য তিনি পেয়ে গিয়েছিলেন ‘ফিল্ম ফেয়ার অ্যাওয়ার্ডও’।

কিন্তু অনুরাগ বসু তার বাংলা টক শো ‘কে হবে বিগেস্ট ফ্যান’ এর একটি এপিসোডে স্বীকার করে নিয়েছিলেন যে কঙ্গনার চরিত্রটি তিনি প্রথমে অফার করেছিলেন কোয়েল মল্লিককে। এই চরিত্রের জন্য অভিনেত্রী কোয়েল এতটাই পারফেক্ট ছিলেন যে তাকে দিতে হয়নি কোনো অডিশনও।

তবে যখন তিনি কোয়েলকে গ্যাংস্টার মুভির স্ক্রিপ্ট পড়ে শোনাচ্ছিলেন, তখন একথা কোয়েল জানতে পারেন যে তাকে ইমরান হাশমির সঙ্গে ঘনিষ্ঠ দৃশ্যে অভিনয় করতে হবে। কোয়েল বরাবরই ঘনিষ্ঠ দৃশ্য এড়িয়ে চলতে পছন্দ করেন।

সেই কারণেই তিনি পরিচালক অনুরাগ বসুর এই অফার ফিরিয়ে দেন।অনুরাগ পরে এ কথা স্বীকার করেন যে কোয়েল তার এথিকস এবং মোরালের প্রতি এতটাই কমিটেড যে এত বড় বলিউড মুভিতে অভিনয়ের সুযোগ ফিরিয়ে দিতে দুবার ভাবেননি তিনি। কোয়েলের চরিত্রটি অফার করা হয় নবাগতা কঙ্গনাকে।

তার পরের ঘটনা আমরা সবাই জানি। এই সিনেমায় অভিনয়ের মাধ্যমেই বলিউডে উত্থান ঘটে অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউতের।কোয়েলের বদলে অন্য কোন অভিনেত্রী থাকলে এই অফার ফিরিয়ে দেওয়ার আগে দুবার ভাবতো।