ভোটের মুখে ফের ভাঙন যোগীরাজ্যের মন্ত্রীসভায়, অস্বস্তি বাড়ছে বিজেপির

ভোটের মুখে ফের ভাঙন যোগীরাজ্যের মন্ত্রীসভায়, অস্বস্তি বাড়ছে বিজেপির

আরোহী নিউজ ডেস্ক : ৩ দিনে হ্যাটট্রিক! যোগী রাজ্যে পরপর ৩ দিনে ৩ মন্ত্রীর দলত্যাগ নিয়ে যথেষ্ট অস্বস্তিতে পড়েছে বিজেপি । উত্তরপ্রদেশে শেষ তিনদিনে ৩ মন্ত্রীসহ মোট ৮ জন বিজেপি ত্যাগ করলেন । এর মধ্যে ৫ জন বিধায়কও রয়েছেন  জানা গিয়েছে। স্বামীপ্রসাদ মৌর্য, দারা সিংহের পর উত্তরপ্রদেশের যোগী আদিত্যনাথ সরকারের আরও এক মন্ত্রীর ইস্তফা। এবার যোগী মন্ত্রিসভা থেকে ইস্তফা দিলেন রাজ্যের খাদ্য প্রতিমন্ত্রী ধরম সিংহ সাইনি । এর আগে এদিন উত্তরপ্রদেশের আরও ২ বিজেপি বিধায়ক পদত্যাগ করেছেন।  দল ছেড়েছেন বিজেপি বিধায়ক বিনয় শাক্য, মুকেশ বর্মা।

জানা গেছে, ইতিমধ্যেই অখিলেশের সঙ্গে দেখা করেছেন আর এক বিজেপি বিধায়ক রাম ফেরন পাণ্ড্য। ফলে ওই বিজেপির বিধায়ককে নিয়েও ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে জল্পনা। ইস্তফা দিয়ে বিজেপিকে হুঁশিয়ারি দিয়ে মুকেশ বর্মা বলেছেন, "সঙ্গে ১০০ বিধায়ক, রোজ ইঞ্জেকশন দেব।" 

মন্ত্রিত্ব ছাড়ার পরেই সমাজবাদী পার্টি নেতা অখিলেশ যাদবের সঙ্গে দেখা করেন সমাজবাদী পার্টিতে যোগ দেন ধরম সিংহ সাইনি। সাইনির সঙ্গে ছবি শেয়ার করে অখিলেশ  ট্যুইটে লেখেন, "সমাজবাদী পার্টিতে স্বাগত"।

সাইনির সঙ্গে সাক্ষাতের পর ‘মেলা হবে’ হ্যাশট্যাগ দিয়ে ট্যুইট করেছেন অখিলেশ। তিনি লিখেছেন, সামাজিক ন্যায়ের আর এক যোদ্ধা ড. ধরম সিংহ সাইনি আসায়  সকলের প্রচেষ্টায়,  সবাই মিলিয়ে সমবেতভাবে কাজ করলে আরও অনেক বেশি উৎসাহ ও উদ্দীপনা পাওয়া যাবে ।

রাজ্যপালকে লেখা চিঠিতে ধরম সিংহ সাইনি লিখেছেন, মন্ত্রী হিসেবে তিনি সম্পূর্ণ মনোযোগ সহকারে সরকারী দফতরের দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনিও আর সকলেরই মতো দলিত, অনগ্রসর, শিক্ষিত কর্মসংস্থানহীন তরুণ এবং ছোট ও মাঝারি ব্যবসায়ীদের উপেক্ষার অভিযোগ এনেছেন যোগী সরকারের বিরুদ্ধে। তিনি বলেছেন, যে আশা নিয়ে বিজেপি এরাজ্যে সরকার গঠন করেছিল, সেই আশা পূরণ হয়নি। দলিতদের যোগ মর্যাদা ও সম্মান না দেওয়াতেই তিনি ইস্তফা দিয়েছেন বলে জানান সাইনি। 

আগামী ১০ ফেব্রুয়ারি উত্তরপ্রদেশ বিধানসভার প্রথম দফার নির্বাচন। মোট ৪০৩ আসনে সাত দফায় ভোট গ্রহণ করা হবে। প্রথম দফায় পশ্চিম উত্তরপ্রদেশের ১১ জেলার ৫৮ আসনে ভোট গ্রহণ করা হবে। সম্ভবত বৃহস্পতিবারই উত্তরপ্রদেশের বিধানসভা নির্বাচনের প্রার্থী তালিকা ঘোষিত হবে। কিন্তু তার আদে এই দল-বদলের দাপট যথেষ্ট চিন্তায় ফেলেছে গেরুয়া শিবিরকে।

এদিকে, এরই মধ্যে ভোটে কংগ্রেস প্রার্থী করেছে উন্নাও-র নির্যাতিতার মাকে। তার মধ্যে একের পর এক মন্ত্রী-বিধায়কের দলত্যাগে ঘরে বাইরে জোড়া চাপে বিজেপি।