উদ্বোধন টালা ব্রিজের, দরিদ্রদের জন্য রেলের জমি কিনতে চাইলেন মুখ্যমন্ত্রী

ভেবেছিলাম, রেল সোশ্যাল ওয়ার্ক হিসেবে টাকা নেবে না। কিন্তু ৯০ কোটি টাকা নিয়েছে রেল

উদ্বোধন টালা ব্রিজের, দরিদ্রদের জন্য রেলের জমি কিনতে চাইলেন মুখ্যমন্ত্রী

আরোহী নিউজডেস্ক: আড়াই বছর পর অবশেষে উদ্বোধন হয়ে গেল নবমির্মিত টালা ব্রিজ বা হেমন্ত সেতুর। বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৫টা নাগাদ টালা ব্রিজের উদ্বোধন করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এই অনুষ্ঠানেই তিনি উপস্থিত রেলের কর্তাদের কাছে এক অভিনব প্রস্তাব দিলেন মুখ্যমন্ত্রী। দরিদ্র মানুষজনের মাথার উপর ছাদ করে দেওয়ার জন্য টালা ব্রিজের পাশেই রেলের জমি কিনে নেওয়ার প্রস্তাব দিলেন তিনি।

এদিন টালা ব্রিজের উদ্বোধনে উপস্থিত ছিলেন পূর্ব রেলের উচ্চপদস্থ কর্তারা। তাঁদের সামনেই এদিন মুখ্যমন্ত্রী রেলের সমালোচনা করেন। মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়ের দাবি, 'পুরোনো টালা ব্রিজ ভাঙতে চার মাসের বেশি সময় লাগিয়েছে রেল। কিন্তু আমরা দ্রুত কাজ শেষ করতে চেয়েছিলাম। এই ব্রিজ তৈরির পুরো টাকা রাজ্য সরকার দিয়েছে। ভেবেছিলাম, রেল সোশ্যাল ওয়ার্ক হিসেবে টাকা নেবে না। কিন্তু ৯০ কোটি টাকা নিয়েছে রেল'।

এরপরই তিনি স্থানীয় মানুষদের সমস্যার কথা তুলে ধরেন। মুখ্যমন্ত্রীর কথায়, 'এখানে ১৪৫ টি গরিব পরিবার আছে। রেলের এখানে যে জমি আছে, সেটা কিনতে চাই আমরা। সেই জমিতে এঁদের জন্য বাড়ি বানিয়ে দিতে চাই। কারণ, রাজ্যের এখানে আর কোনও জমি নেই। রেলের জমি না পেলে তাঁদের খালের ধারেই বাড়ি বানিয়ে দিতে হবে। রেলের কাছ থেকে আমরা টাকা দিয়ে জমিটা কিনব, টাকাপয়সার কোনও সমস্যা হবে না'। পরে কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিমকেও একই কথা বলে নির্দেশ দেন বিষয়টি দেখার জন্য।