সবার জন্মদিন মনে রাখে যে, আজ তার জন্মদিন

সবার জন্মদিন মনে রাখে যে, আজ তার জন্মদিন

আরোহী নিউজ ডেস্ক: একটা নীল বক্স আর সাদা হরফে লেখা 'এফ'। বাস্তব দুনিয়া ছাড়াও মানুষ বাস করেন এক অন্য দুনিয়ায়। আপলোড, লাইক, কমেন্ট আর জুড়ে থাকা.... ওয়েলকাম টু ফেসবুক দুনিয়া। সাত সমুদ্দুর, তেরো নদী হাজার খানেক উপত্যকা পেরিয়েও যোগাযোগের জাল বিছিয়ে রাখে ফেসবুক। নেটওয়ার্ক, কানেকশন, এই দু'য়ের জাল বুনে গোটা দুনিয়ার বন্ধুত্বকে একটা মুঠোয় এনে দিয়েছে ফেসবুক। যে সবার জন্মদিন মনে রাখে আজ তার জন্মদিন.... আজ ফেসবুকের জন্মদিন। ফেসবুক আজ ১৮ তে পা দিলো। 

কেক বেলুনে আজ হয়তো সাজবে জুকারবার্গের ঘর। তবে এর শুরুটা কোথায়! ২০০৪ সালের ৪ ফেব্রুয়ারি। আমেরিকান কম্পিউটার প্রোগ্রামার ও সফটওয়্যার ডেভেলপার মার্ক জুকারবার্গ হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সময় তার বন্ধু ও কম্পিউটারবিজ্ঞান বিষয়ের ছাত্র এডওয়ার্ডো সেভারিন, ডাস্টিন মস্কোভিতস ও ক্রিস হিউজেস মিলে নির্মাণ করেন ফেসবুক। সেই শুরু। বহু চড়াই উতরাই পেরিয়ে ফেসবুকের বর্তমান ব্যবহারকারীর সংখ্যা প্রায় ২৫০ মিলিয়ন।

ফেসবুকের জন্মদিনে আরও নতুন ভাবে সেজে উঠবে ফেসবুক। শুধু ১৮ নয়, ইউজারদের শুভেচ্ছায় আরও অনেক দূর এগিয়ে যাবে ফেসবুক। হয়তো অন্য কোনো জন্মদিনে অন্য অনেক ফিচার নিয়ে আসবে ফেসবুক। তবে ফেসবুক নীল রঙেরই কেন? তার পেছনে কিন্তু ফেসবুকের সৃষ্টিকর্তা জুকারবার্গের কালার ব্লাইন্ড হওয়ার বিষয় রয়েছে। আসলে তিনি লাল কিংবা সবুজ রং একেবারেই চেনেন না। তার কাছে সবচেয়ে উজ্জ্বল রং নীল হওয়ায় ফেসবুকের রংটাও নীল রাখেন জুকারবার্গ। ফেসবুক দুনিয়ার সব মানুষকে একত্রিত করেছে। বেঁধে রেখেছে। এভাবেই আরও বহু দিন বহু বছর থাকুক ফেসবুক।